২৬শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ. ১০ই জুলাই, ২০২০ ইং

বিজয় এক্সপ্রেস ও কালনী এক্সপ্রেসের যাত্রা বিরতির দাবিতে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মানববন্ধন,

 

স্টাফ রিপোর্টার,

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় থেকে ঢাকা পর্যন্ত রেলপথে একটি বিরতিহীন আন্তঃনগর ট্রেন চালু ও আন্তঃনগর বিজয় এক্সপ্রেস এবং কালনী এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রা-বিরতির দাবিতে শনিবার ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়েছে।

শনিবার সকাল ১০টা থেকে বেলা ১১টা পর্যন্ত ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সামনে জেলা নাগরিক ফোরামের উদ্যোগে এই মানববন্ধন কর্মসূচী পালিত হয়।

জেলা নাগরিক ফোরামের সভাপতি পীযূষ কান্তি আচার্যের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফিরোজুর রহমান, জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক শাহ আলম সরকার, জেলা জাসদের সভাপতি আকতার হোসেন সাঈদ, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের আহবায়ক আব্দুন নূর, নারী সংগঠক নন্দিদা গুহ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক দীপক চৌধুরী বাপ্পী, বাংলাদেশ আবৃত্তি সমন্বয় পরিষদের সাংঠনিক সম্পাদক মনির হোসেন প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, বাংলাদেশ রেলওয়ের সবচেয়ে বেশি আয় করা স্টেশনগুলোর মধ্যে ব্রাহ্মণবাড়িয়া অন্যতম। প্রতিদিন হাজার-হাজার যাত্রী ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেটসহ বিভিন্ন গন্তব্যে যাতায়াত করেন।

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় যাত্রাবিরত দেয়া আন্তঃনগর ট্রেনগুলো আসন সংখ্যা যাত্রীর তুলনায় খুবই অপ্রতুল। চলতি বছরের শুরুর দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে ঢাকাগামী বিভিন্ন আন্তঃনগর ট্রেনের অনেক আসন কেটে নেয়া হয়েছে। এ কারণে যাত্রীদের দুর্ভোগ বেড়েই চলেছে।

বক্তারা বলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে ঢাকা পর্যন্ত নতুন একটি বিরতিহীন আন্তঃনগর ট্রেন ব্রাহ্মণবাড়িয়াবাসীর প্রাণের দাবি। এছাড়া ঢাকা-সিলেট রেল পথে চলাচলকারী আন্তঃনগর কালনী এক্সপ্রেস ও চট্টগ্রাম-ময়মনসিংহ রেলপথে চলাচলকারী আন্তঃনগর বিজয় এক্সপ্রেস ট্রেনের ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় যাত্রাবিরতি দেয়ার দাবি জানান। মানববন্ধন শেষে জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছে একটি স্মারকলিপি পাঠানো হয়।