৪ঠা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ. ১৭ই এপ্রিল, ২০২১ ইং

আশুগঞ্জ জমি অধিগ্রহনের টাকা পেল জমির মালিকরা

বিশেষ প্রতিনিধি,
ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আশুগঞ্জ অভ্যন্তরীন কন্টেইনার টার্মিনাল (আইসিটি) প্রকল্পের জমি অধিগ্রহনের টাকা পেলো জমির মালিকরা। সোমবার বিকেলে উপজেলার চর চারতলা মহরম পাড়ায় মেঘনা নদীর তীরে প্রস্তাবিত স্থানেই জমির মালিকদের হাতে চেক হস্তান্তর করেছেন জেলা প্রশাসক হায়াদ-দৌলা-খান। দীর্ঘদিন অপেক্ষার পর জমির মূল্যের চেয়ে তিন গুন বেশি মুল্য পাওয়ায় খুশি জমির মালিকরা।

এ সময় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) তাজিনা সারোয়ার, আশুগঞ্জ উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হানিফ মুন্সী, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাজিমুল হায়দার, কমিশনার (ভূমি) এটিএম মোর্শদসহ অধিগ্রহনকৃত জমির মালিকরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রকল্পটিতে ২৫ একর জমির ৫৪১ জন জমির মালিককের জমি অধিগ্রহন করছে জেলা প্রশাসন। অধিকৃত ভূমির মূল্য ৬২০ কোটি টাকা জমির মালিকদের কাছে হস্তান্তর করা হবে। প্রথমদিনে ১২জন জমির মালিককে ৩৫ কোটি টাকার চেক হস্তান্তর করা হয়েছে।

উল্লেখ্য, ২০০৩ সাল থেকে নৌ মন্ত্রনালয় প্রকল্পটি বাস্তবায়নের উদ্যোগ নিলেও সমীক্ষা, অর্থসংকটসহ নানা জটিলতায় প্রকল্পটির জমি অধিগ্রহন শুরু হচ্ছিলনা। চলতি বছরের ২২ মে প্রকল্পটি একনেক সভায় অনুমোদন পায়। প্রকল্পটির মোট ব্যয় ধরা হয়েছে ১ হাজার ২৯৩ কোটি টাকার এর মধ্যে বাংলাদেশ সরকারের নিজস্ব তহবিল থেকে ব্যয় হবে ৮৬২ কোটি টাকা। প্রকল্প সাহায্য হিসেবে বাকি ৪৩১ কোটি টাকা ভারতের দ্বিতীয় এলওসি থেকে পাওয়া যাবে। প্রকল্পটি বাস্তবায়ন হবে ২০২০সালে। প্রকল্পটি বাস্তবায়িত হলে নৌপথে পণ্যবাহী কন্টেইনার পরিবহনে নতুন দিগন্তের সূচনা হবে। এতে আর্থিক ও বাণিজ্যিকভাবে বাংলাদেশ লাভবান হবে।