২রা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ. ১৭ই অক্টোবর, ২০২১ ইং

কসবায় যুবদলের ঝাড়– ও জুতা মিছিল

স্টাফ রিপোর্টার:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলা জাতীয়তাবাদী যুবদল ও পৌর যুবদলের পকেট কমিটি বাতিলের দাবিতে ঝাঁড়– ও জুতা মিছিল করেছে উপজেলা যুবদলের বিক্ষুদ্ধ নেতা-কর্মীরা।

শনিবার দুপুরে কসবা উপজেলা সদরের পুরাতন বাজারের দলীয় কার্যালয়ের সামনে থেকে ঝাড়– ও জুতা মিছিলটি বের হয়ে উপজেলা সদরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিন করে উপজেলা পরিষদের সামনে গিয়ে শেষ হয়। বিক্ষোভ মিছিল চলাকালে বিক্ষুদ্ধ নেতা-কর্মীরা বিএনপি নেতা কবির আহাম্মেদ ভূইয়ার কুশপুত্তলিকা দাহ করেন।

বিক্ষোভ মিছিল শেষে অনুষ্ঠিত প্রতিবাদ সমাবেশে কসবা উপজেলা যুবদলের সাবেক কমিটির আহবায়ক মোঃ কামাল উদ্দিন ও যুগ্ম আহবায়ক মেহেদী হাসান রুবেল জানান, তাদের পূর্বের কমিটি বাতিল না করে, তাদেরকে অবগত না করে রাতের আঁধারে গত ১২জুন উপজেলা যুবদল ও পৌর যুবদলের নতুন কমিটি অনুমোদন করা হয়। অনুমোদনের প্রায় তিন মাস পর গত ১২ সেপ্টেম্বর ফেসবুকের মাধ্যমে উপজেলা যুবদলের নতুন কমিটি ঘোষনা করা হয়। তারা এই ঘটনার জন্য বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানের একান্ত সচিব আবদুর রহমান সানি এবং তার বড় ভাই ভূইয়া ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান কবির আহম্মেদ ভূঁইয়াকে দায়ি করে বলেন, মোটা অংকের অর্থ বাণিজ্যের মাধ্যমে সানিকে দিয়ে তারেক রহমানের নাম ভাঙ্গিয়ে কবির আহম্মেদ ভূঁইয়া কসবা উপজেলা যুবদলের নতুন কমিটি ঘোষনা করেছেন।

নতুন কমিটিতে যাদের নাম আছে কসবায় তাদের কোনো অবস্থান নেই। তারা আগামী ৭ দিনের মধ্যে এই পকেট কমিটি বাতিলের দাবি জানিয়ে বলেন, অন্যথায় কঠোর আন্দোলন করা হবে।

এ সময় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন কসবা উপজেলা যুবদলের সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক মোঃ সেলিম অপু, পৌর যুবদলের সদস্য সচিব মোঃ হেলাল উদ্দিন।

বিক্ষোভ মিছিল শেষে যুবদলের নেতা-কর্মীরা নতুন কমিটি বাতিলের দাবিতে কসবা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে। সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন কসবা উপজেলা যুবদলের সাবেক কমিটির আহবায়ক মোঃ কামাল উদ্দিন। এ সময় কসবা উপজেলা যুবদলের নেতা-কর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে ভূঁইয়া ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান কবির আহাম্মেদ ভূইয়ার সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তিনি ক্ষুদে বার্তায় জানান, তার ছোট মেয়ে অসুস্থ তিনি এ বিষয়ে পরে কথা বলবেন।