২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ. ৬ই জুলাই, ২০২২ ইং

আশুগঞ্জের যাত্রাপুরে সংর্ঘষের হামলা ও লোটপাটের শিকার, দাবী ভুক্তভোগীদের।

আশুগঞ্জ প্রতিনিধি:

ব্রাহ্মণবাড়িয়া আশুগঞ্জের যাত্রাপুরে সংর্ঘষের হামলা ও লোটপাটের শিকার হাসেম ব্যাপারীর বাড়ির লোকজনকে হয়রানি করেত বড়বাড়ির লোকজনের নানা কৌশলের তীব্র নিন্দা ও প্রসাশনের নজরদারী কামনা করছে ভুক্তভোগীরা।

ভুক্তভোগীরা জানান, গত ২ আগস্ট রবিবার সকালে বড়বাড়ির লোকেরা পূর্ব পরিকল্পিতভাবে হাসেম ব্যাপারীর বাড়ির বাড়িঘরে হামলা করে ১৮টি বাড়ি ভাংচুর করে প্রায় কোটি টাকার ক্ষতি সাধন করে। এই ঘটনার পর হাসেম ব্যাপারীর লোকজন আশুগঞ্জ থানায় মামলা দায়ের করেন। মামলা দায়ের করলে প্রতিপক্ষ বড়বাড়ির লোকজন মামলা তুলে নিতে ভ‚ক্তভোগীদের প্রাণ নাশের হুমকি ও ঘটনার উল্টো মোড় নিতে হাসেম ব্যাপারীর বাড়ির লোকজনকে হয়রানি করতে বিভিন্ন ঘটনা সাজানোর চেষ্টা করতেছে।

এই ঘটনায় ৫ আগস্ট বুধবার হাসেম ব্যাপারীর বাড়ির মোর্শেদ মিয়ার স্ত্রী আশুগঞ্জ থানায় সাধারণ ডায়েরী করেন। এদিকে গত ৮ আগস্ট শনিবার রাতে বড়বাড়ির আইজু মিয়া ও মোনায়েম খার বাড়িতে হামলা ও লোটপাটের ঘটনা ঘটে। তবে এই হামলা লোটপাটের ঘটনা হাসেম ব্যাপারীর বাড়ির লোকজন সাজানো নাটক বলে দাবী করেন এবং এই ঘটনার তীব্র নিন্দা জানান তারা।

ভুক্তভোগীদের মধ্যে আবু বক্কর জানান, গত রবিবার বড়বাড়ির লোকেরা পূর্ব পরিকল্পিতভারে আমাদের উপর হামলা করে আমাদের বাড়িঘর ভাংচুর করে প্রায় কোটি টাকার ক্ষতি সাধন করে। আমরা থানায় মামলা করি। মামলা করার পর থেকেই বড় বাড়ির লোকজনেরা ঘটনার উল্টো মোড় নিতে বিভিন্ন প্রকার সাজানো নাটক করছে এবং আরো নাটক করার চেষ্টাও চালাচ্ছে। তারা যেন কোন প্রকার হয়রানি মূলক সাজানো নাটক না করতে পারে সেই ব্যাপারে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছেন তিনি।

আশুগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জাবেদ মাহমুদ জানান, এ বিষয়ে তদন্ত চলছে। প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে।

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com