১৩ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ. ২৬শে জানুয়ারি, ২০২১ ইং

বাল্য বিয়ের হাত থেকে রক্ষা পেয়েছে স্কুল ছাত্রী

স্টাফ রিপোর্টার:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার বিজয়নগরে উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) এর হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ের হাত থেকে রক্ষা পেয়েছে নবম শ্রেনীর এক স্কুল ছাত্রী।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার পাহাড়পুর ইউনিয়নের ভিটিদাউদপুর গ্রামে উপস্থিত হয়ে তিনি বাল্য বিয়ে বন্ধ করে দেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ভিটিদাউদপুর গ্রামের বাসিন্দা ও উপজেলার মুকুন্দপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর এক স্কুল ছাত্রীর সাথে বৃহস্পতিবার দুপুরে একই গ্রামের এক যুবকের বিয়ে হওয়ার কথা ছিলো।

স্থানীয়দের মাধ্যমে বিষয়টি জানতে পেরে উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মাহাবুবুর রহমান দুপুরে বর আসার আগেই বিয়ে বাড়িতে গিয়ে উপস্থিত হন।

পরে তিনি ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনা করে মেয়ে প্রাপ্ত বয়স্ক না হওয়া পর্যন্ত বিয়ে দিবেন না মর্মে ওই ছাত্রীর বাবা, মায়ের কাছ থেকে মুচলেকা আদায় করেন।

এ সময় স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ, স্থানীয় মেম্বার নাসির মিয়াসহ বিজয়নগর থানার পুলিশ উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে ভ্রাম্যমান আদালত পরিচালনাকারী উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মাহাবুবুর রহমানের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, বাল্য বিয়ের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান অব্যাহত থাকবে।