১৩ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ. ২৭শে নভেম্বর, ২০২০ ইং

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় হতদরিদ্রদের মধ্যে ১০টাকা কেজি দরে চাল বিক্রি শুরু

স্টাফ রিপোর্টার:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় প্রধানমন্ত্রীর খাদ্য বান্ধব কর্মসূচীর আওতায় পৌর এলাকার ১২টি ওয়ার্ড এবং সদর উপজেলার ১১টি ইউনিয়নে হত দরিদ্রদের মধ্যে ১০কেজি দরে চাল বিক্রি কার্যক্রম শুরু হয়েছে।

রোববার সকালে পৌর এলাকার ভাদুঘর বাজারে পৌর সভার চাল বিক্রির কার্যক্রম উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক হায়াত-উদ দৌলা খাঁন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আল মামুন সরকার, জেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক সুবীর নাথ, সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কাউছার সজীব।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, পৌর এলাকার ১২জন ডিলার সপ্তাহের তিনদিন ( রবিবার, মঙ্গলবার ও বৃহস্পতিবার) ১০টাকা কেজি দরে একটন চাল বিক্রি করবেন। প্রতিজন লোক ৫ কেজি চাল কিনতে পারবেন। অপর দিকে প্রধানমন্ত্রীর খাদ্য বান্ধব আওতায় রোববার সকালে সদর উপজেলার ১১টি ইউনিয়নের ২২জন ডিলার একযোগে হতদরিদ্রদের মধ্যে এই চাল বিক্রি শুরু করেন।

রোববার সকাল ১০টায় সদর উপজেলার মাছিহাতা ইউনিয়নে ১০টাকা কেজি দরের চাল বিক্রির কার্যক্রম উদ্বোধন করেন সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পঙ্কজ বড়ুয়া। পরে তিনি সদর উপজেলার নাটাই উত্তর, রামরাইল, বাসুদেবসহ বিভিন্ন ইউনিয়নের এই কার্যক্রমের উদ্বোধন করেন।

মাছিহাতা ইউনিয়নের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ইউপি চেয়ারম্যান আল-আমিনুল হক পাভেল, সদর উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক কাওসার সজীব, ইউপি সদস্যরা সহ উপকারভোগীরা উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পঙ্কজ বড়ুয়া বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর খাদ্য বান্ধব কর্মসূচীর অংশ হিসেবে সদর উপজেলার ১১টি ইউনিয়নে ২২জন ডিলারের মাধ্যমে হতদরিদ্রদের মধ্যে ১০ টাকা কেজি দরে চাল বিক্রি শুরু হয়েছে।

তিনি বলেন, সদর উপজেলার ১৮ হাজার ৫৮৬জন কার্ডধারী প্রতিমাসে একবার ১০টাকা কেজি দরে এক সাথে ৩০ কেজি চাল কিনতে পারবেন। তিনি বলেন, চাল বিক্রিতে কোন ডিলারের বিরুদ্ধে কোন অনিয়মের কোন অভিযোগ পাওয়া গেলে তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।