Advertisement

ফার্নিচার ব্যবসায়ীকের হত্যাকারী গ্রেফতার

NewsBrahmanbaria

এই আর্টিকেল টি ৫০২।

স্টাফ রিপোর্টার:

ঘটনার তিন দিন পর ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে উপজেলার শিবপুর ইউনিয়নের বাঘাউড়া গ্রামে চাঞ্চল্যকর ফার্নিচার ব্যবসায়ী আতিকুর রহমান সুমন (২৮) হত্যাকান্ডের ঘাতক শরীফ মিয়া (২২) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বুধবার (৬ এপ্রিল) রাতে সদর উপজেলার নারায়ণপুর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। শরীফ একই গ্রামের মারফত আলীর ছেলে।

গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে নবীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুর রশীদ জানান, তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে বুধবার রাতে সদর উপজেলা নারায়ণপুর এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। ঘটনার পর সে চট্টগ্রামে চলে যায়। সে টাকা নেওয়ার জন্য বুধবার (৬ এপ্রিল) রাতে চট্টগ্রাম থেকে নবীনগরে আসে। প্রযুক্তির সহায়তায় এ সময় তাকে গ্রেফতার করা হয়।

ওসি আমিনুর রশিদ আরও জানান, আতিকুর রহমান সুমনের বাড়ি মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার আলিপুর গ্রামে। তিনি ৮ বছর ধরে নবীনগরের বাঘাউড়া গ্রামে বসবাস করার পাশাপাশি ফার্নিচারের ব্যবসা করে আসছিলেন। এরই সুবাদে প্রতিবেশী শরীফ মিয়ার স্ত্রী সাথি বেগমের সঙ্গে পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়েন। বিষয়টি শরীফ টের পাওয়ার পর তার স্ত্রীর সঙ্গে এ নিয়ে পারিবারিক কলহ চলছিল।

এর মধ্যে কয়েকদিন আগে শরীফের স্ত্রী সাথি তার সঙ্গে ঝগড়া করে বাবার বাড়িতে চলে যান। এই ক্ষোভে শরীফ প্রেমিক ফার্নিচার ব্যবসায়ী আতিকুর রহমান সুমনকে হত্যার ছক কষতে থাকে। এর অংশ হিসেবে গত সোমবার ভোর ৫টার দিকে সুমন সেহরি খেয়ে নামাজ পড়ার জন্য ঘর থেকে বের হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে আগে থেকে ওত পেতে থাকা শরীফ গুলি করে তাকে হত্যা করে পালিয়ে যায়। এই ঘটনার পর ওইদিন নিহত সুমনের বড় ভাই নবীনগর থানায় হত্যা মামলা করেন। এরপর থেকে হত্যাকান্ডে জড়িত শরীফকে গ্রেফতারে মাঠে নামে পুলিশ। পরে তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে তাকে নবীনগর সদরের নারায়ণপুর এলাকা থেকে গ্রেফতার করে।

Advertisement

Sorry, no post hare.

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com