Advertisement

তিন ফুট উচ্চতার বর’কে বিয়ে করলেন আড়াই ফুটের বধূ

NewsBrahmanbaria

এই আর্টিকেল টি ১৪৭।

নিউজ ডেস্ক,

বর ছিলেন তিন ফুট। আর কনে আড়াই ফুটের। অস্বাভাবিক উচ্চতার এই বর-কনের বিয়ে নিয়ে কৌতুহল ছিলো সবার মাঝে। বিয়ের বয়স পরিপূর্ণ হলেও বর মোঃ ফরহাদ পাচ্ছিলেন না কনে। দীর্ঘদিন পর সন্ধান মিলে আড়াই ফুটের এক কনে আরিফার। এরপর দু পরিবারের অনুমতিতে ঠিক হয় বিয়ের দিন তারিখ।

অবশেষে মহা ধুমধামে ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় তিন ফুট ছেলের সাথে আড়াই ফুট মেয়ের বিয়ে দিয়েছেন দুই পরিবার। তাদের বিয়ের খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে ব্যাপক ভাবে। শুক্রবার (১০ নভেম্বর) ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর উপজেলার রামরাইল ইউনিয়নের উলচাপাড়া গ্রামের মন মিয়ার ছেলে মোঃ ফরহাদ মিয়ার সাথে বিয়ে হয় পূর্ব তালশহর ইউনিয়ন পুতায় গ্রামের আলী আকবর এর মেয়ে মোছাঃ আরিফা আক্তারের। দুজনেরই শারীরিক বিকাশ স্বাভাবিক নয়।

বরের মামা মোঃ জুয়েল মিয়া বলেন, ফরহাদের বয়স ২৭ বছর। বিয়ের বয়স হওয়ার পর থেকে কনে খুঁজছিলাম। দীর্ঘদিন কনে খুঁজে না পেয়ে, অবশেষে সদর উপজেলার পুতায় গ্রামে একটি মেয়ে খুঁজে পাই। মেয়েটির উচ্চতা আড়াই ফুট। আমরা দুই পরিবারের সম্মতিক্রমে তাদের বিয়ের আয়োজন করি। বিয়েতে দুইটি মাইক্রোবাসে ৪০ জন বরযাত্রী গিয়েছি। মুসলিম সরিয়াহ অনুযায়ী সকল আনুষ্ঠানিকতা শেষে ১ লাখ ৫০ হাজার টাকায় দেনমোহরে তাদের বিয়ে সম্পন্ন হয়।

বরের প্রতিবেশী শেখ তারেক আহমেদ বলেন, বর ফরহাদের জন্ম দরিদ্র পরিবারে। সে রুপার কাজ করে জীবিকা নির্বাহ করে আসছে। তার উচ্চতা ৩ ফুট হলেও তাকে পরিবারের সদস্যসহ গ্রামবাসী খুব আদর করতেন। পরিবারের সদস্যদের সার্বিক সহযোগিতায় তার বিয়ের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। কনের উচ্চতাও আড়াই ফুট। বিয়ের পরে নতুন বর-কনেকে দেখতে ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রাম থেকে লোকজন আসছে। তাদের বিয়ের আয়োজনে আমরা খুব খুঁশি।

বর মোঃ ফরহাদ বলেন, আমাদের দুজনের সম্মতিতেই আমাদের বিয়ে হয়েছে। বিয়ে করতে পেরে অনেক আনন্দ লাগছে। সকলের কাছে দোয়া চাই।আমরা যেন সুন্দর ভাবে সংসার করতে পারি।

Advertisement

Sorry, no post hare.

Social Media Auto Publish Powered By : XYZScripts.com