১১ই আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ. ২৬শে সেপ্টেম্বর, ২০২১ ইং

নেশার টাকার জন্য মাকে কুপিয়ে জখম ॥ ছেলে গ্রেপ্তার

স্টাফ রিপোর্টার:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে নেশার টাকার জন্য মা সায়েরা বেগম-(৪৫) কে কুপিয়ে জখম করেছে ছেলে মাসুদ মিয়া। রোববার রাতে উপজেলার বিদ্যাকুট ইউনিয়নের বিদ্যাকুট গ্রামে এই ঘটনা ঘটে। পুলিশ মাসুদ মিয়াকে গ্রেপ্তার করেছে।

মাসুদ মিয়া উপজেলার বিদ্যাকুট গ্রামের মৃত সাদেক মিয়ার ছেলে। আহত সায়েরা বেগমকে উদ্ধার করে প্রথমে নবীনগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে রাতেই উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়।

পুলিশ ও আহতের পরিবারের সদস্যরা জানান, মাসুদ মিয়া দীর্ঘদিন ধরেই মাদকাসক্ত। প্রায়ই নেশার টাকার জন্য পরিবারের সদস্যদের সাথে খারাপ আচরণ করতো। রোববার বিকেলে মাদকাসক্ত মাসুদ মাদক কেনার জন্য তার মায়ের কাছে টাকা চায়। মা সায়েরা বেগম টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করলে মা-ছেলের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এক পর্যায়ে মাসুদ মিয়া ঘর থেকে বটি দা নিয়ে সায়েরা বেগমকে এলোপাথারী কুপিয়ে জখম করেন। তার চিৎকার শুনে পরিবারের সদস্য ও স্থানীয়রা এসে সায়েরা বেগমকে উদ্ধার করে এবং মাসুদকে আটক করে পুলিশকে খবর দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছলে মাসুদকে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়।

আহত সায়েরা বেগম জানান, ছেলে মাসুদ মিয়া সকাল থেকেই মাদকের টাকার জন্য উৎপাত শুরু করে। বিকেলে টাকা দিতে না পারায় তাকে বটি দিয়ে কুপিয়ে জখম করে।

এ ব্যাপারে নবীনগর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আমিনুর রশীদ ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, এ ঘটনায় মাসুদ মিয়ার চাচা বাদী হয়ে থানায় মামলা দায়ের করেছেন। গ্রেপ্তারকৃত মাসুদ মিয়াকে সোমবার সকালে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।