১০ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ. ২৪শে নভেম্বর, ২০২০ ইং

নবীনগরে যুবদলের সভায় পুলিশের লাঠিচার্জ ও গুলি, কেন্দ্রীয় নেতাসহ আহত ২৫

স্টাফ রিপোর্টার:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নবীনগরে পুলিশের সাথে যুবদল নেতাকর্মীদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া হয়েছে। শুক্রবার বিকেলে পৌরশহরের আলীয়াবাদ মদন মেম্বাবারের বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে। জেলা বিএনপির দাবী এ সময় পুলিশের লাঠিচার্জ ও গুলিতে অন্তত ২৫ জন নেতাকর্মী আহত হয়।

আহতদেরকে জেলা সদর হাসপাতালসহ বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। আহতরা হলেন, যুবদলের কেন্দ্রীয় কমিটি সহ-সভাপতি টিম প্রধান জাকির হোসেন সিদ্দিকী ও জেলা যুবদল সভাপতি শামীম মোল্লা, সহ-সভাপতি রাশেদুল হক রাশেদ, তাজুল ইসলাম বাবুল, সাধারণ সম্পাদক ইয়াছিন মাহমুদসহ অন্যান্যরা।

জানা যায়, আলীয়াবাদ মদন মেম্বাবারের বাড়িতে বিকেলে উপজেলা যুবদলের এক সাংগঠনিক সভার আয়োজন করা হয়। এ সময় বিপুল সংখ্যক পুলিশ আলিয়াবাদ মদন মেম্বারের বাড়িতে উপস্থিত হয়ে ব্যাপক লাঠিচার্জ ও গুলি ছোঁড়ে। খবর পেয়ে রাতে জেলা বিএনপির সভাপতি হাফিজুর রহমান মোল্লা কচিসহ নেতৃবৃন্দ আহতদের দেখতে হাসপাতালে ছুটে যান।

এ সময় তিনি অভিযোগ করে বলেন, পুলিশ অর্তকিত ভাবে আমাদের নেতাকর্মীদের উপর হামলা চালায়। এ সময় লাঠিচার্জ ও গুলিবর্ষণ করলে ২৫ জন নেতাকর্মী আহত হয়।

এ বিষয়ে নবীনগর থানার পরিদর্শক তদন্ত রুহুল আমিন বলেন, সভা করার কোন অনুমতি না থাকার পরও তারা বাড়িতে সভা করে। পুলিশ সেখানে উপস্থিত হলে তারা নিজেরাই ছত্র ভঙ্গ হয়ে যায়। এ সময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে পুলিশ কয়েক রাউন্ড রাবার বুলেট ছুঁড়া হয়।