১০ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ. ২৪শে নভেম্বর, ২০২০ ইং

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় নতুন ট্রেন সহ চার দফা দাবিতে নাগরিক ফোরামের অবস্থান কর্মসূচী পালিত

 

স্টাফ রিপোর্টার:

ঢাকা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া-ঢাকা রেলপথে ব্রাহ্মণবাড়িয়া এক্সপ্রেস নামে একটি নতুন আন্তনগর ট্রেনসহ ৪দফা দাবীতে জেলা নাগরিক ফোরাম দুই ঘন্টা অবস্থান কর্মসূচী পালন করেছে। মঙ্গলবার দুপুরে জেলা প্রশাসকের অফিসের সামনে এই অবস্থান কর্মসূচী পালন করা হয়।

এসময় অবস্থান কর্মসূচীতে উপস্থিত ছিলেন জেলা নাগরিক ফোরামের সভাপতি সাংবাদিক পীযূষ কান্তি আচার্য, সিনিয়র সহ-সভাপতি আতাউর রহমান শাহীন, সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা রতন কান্তি দত্ত, সাহিত্য একাডেমীর সভাপতি কবি জয়দুল হোসেন,বীর মুক্তিযোদ্ধা ওয়াসেল সিদ্দিকী, জেলা কমিউনিস্ট পার্টির সাধারন সম্পাদক সাজিদুল ইসলাম, ওয়াকার্স পার্টির নেতা কমরেড নজরুল ইসলাম, শাফির উদ্দিন চৌধুরী রনি,এমরান হোসেন মাসুদ, শাহ আলম, এডভোকেট জাহাঙ্গির আলম, এডভোকেট উত্তম কুমার দাস,স্মৃতি সবুর, ইখতিয়ার উদ্দিন স্বপন,কবির রানা, নাইমুর রহমান,বোরহান উদ্দিন সোহাগ,সাকিল আহমেদ সহ বিভিন্ন শ্রেনী পেশার মানুষ উপস্থিত ছিলেন।

জেলা নাগরিক ফোরামের সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা রতন কান্তি দত্ত বলেন, ঢাকা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া-ঢাকা রেলপথে ব্রাহ্মণবাড়িয়া এক্সপ্রেস নামে একটি নতুন আন্তনগর ট্রেনসহ ৪দফা দাবীতে দীর্ঘ দিন ধরে আমরা আন্দোলন করে আসছি।আমাদের দাবী না মানা পর্যন্ত আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাবো। তিনি তাদের চার দফা দাবী সম্পর্কে বলেন ঢাকা-ব্রাহ্মণবাড়িয়া-ঢাকা রেলপথে ব্রাহ্মণবাড়িয়া এক্সপ্রেস নামে একটি নতুন আন্তনগর ট্রেন চালু করা,কালনী এবং বিজয় এক্সপ্রেস ট্রেনের ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় যাত্রা বিরতি,চলমান ট্রেনের আসন সংখ্যা বৃদ্ধি এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেলষ্টেশনকে প্রথম শ্রেনীর মর্যাদা প্রদান করা।

অবস্থান কর্মসূচীর পর জেলা প্রশাসক হায়াত উদ দৌলা খানের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর কাছে চার দফা দাবী সম্বলিত স্মারক লিপি প্রদান করেন।