৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ. ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় কম্বল নিয়ে রাতে বেঁদে পল্লীতে সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার

স্টাফ রিপোর্টার:

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় সদর উপজেলার বুধল ইউনিয়নের বেঁদে পল্লী ও সুহিলপুর ও নন্দনপুর ইউনিয়নের বিভিন্ন বাজার এলাকায় ভাসমান ও ছিন্নমূল অসহায় গরীবদের মধ্যে কম্বল বিতরণ করেছেন সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পঙ্কজ বড়–য়া।

গত বৃহস্পতিবার রাত ৯টার দিকে তিনি ছুটে যান সদর উপজেলার বুধল ইউনিয়নের বেঁেদ পল্লীতে। পরে তিনি শীতার্থ বেঁদেদের শরীরে কম্বল জড়িয়ে দেন। বেঁদে পল্লীতে কম্বল বিতরণ শেষে সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার পঙ্কজ বড়–য়া বুধল ইউনিয়নের বিশ্বরোড চৌরাস্তা, নন্দনপুর বাজার ও সুহিলপুর ইউনিয়নের সুহিলপুর বাজার এলাকায় ভাসমান ও ছিন্নমূল অসহায় গরীবদের মধ্যে কম্বল বিতরণ করেন। এ সময় তীব্র শীতের মধ্যে কম্বল পেয়ে শীতার্তরা ইউএনওর প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

এ সময় সদর উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ মাহবুব আলম, বুধল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ আব্দুল হক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী অফিসার পঙ্কজ বড়–য়া বলেন, দিনের বেলা দাপ্তরিক কাজ শেষে গত চারদিন ধরেই রাতের বেলা তিনি প্রধানমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিল থেকে আসা কম্বল নিয়ে যাচ্ছেন সদর উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের প্রত্যন্ত এলাকায়। শীতার্তদের গায়ে জড়িয়ে দিচ্ছেন এই কম্বল।

তিনি বলেন, ইতিমধ্যে সদর উপজেলার বিভিন্ন গ্রামে পাঁচ হাজার ৬০টি কম্বল বিতরণ করা হয়েছে। পর্যায়ক্রমে আরো কম্বল বিতরণ করা হবে। তিনি বলেন, প্রয়োজনে বেসরকারি ভাবে আরো কম্বল সংগ্রহ করে অসহায় শীতার্তদের মাঝে বিতরণ করা হবে।

এছাড়াও শুক্রবার বিকেলে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার স্থানীয় শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত ভাষা চত্বরে বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশন স্টুডেন্ট উয়িং সাবেরা সোবহান সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় শাখার উদ্যোগে দুস্থদের মাঝে শতাধিক কম্বল বিতরণ করা হয়েছে।